পুরাতন অ্যান্ড্রয়েড ফোনের জন্য দুঃসংবাদ


বর্তমানে সর্বাধিক ব্যবহৃত এবং জনপ্রিয় ব্রাউজান হলো গুগল ক্রোম। মর্ডান যুগে গুগল ক্রোমে একবার অন্তন ঘুরে আসেন না এমন ইন্টারনেট ব্যবহারকারী পাওয়া দুস্কর। বর্তমানে অধিকাংশ স্মার্টফোন ব্যবহারকারী তাদের ইন্টারনেট ব্যবহার করার জন্য ডিফল্ট ব্রাউজার হিসেবে গুগলের ক্রোম ব্রাউজার ব্যবহার করে থাকেন।

তবে আপনার মোবাইল যদি পুরাতন হয়ে থাকে তবে আপনার জন্য রয়েছে দুঃসংবাদ। যদি আপনার মোবাইলের অ্যান্ড্রয়েড ভার্সন নোগাট (৭.১) কিংবা তার চেয়ে পুরাতন হয়ে থাকে, তবে খুব শিগ্রই হয়তো আপনার ব্রাউজার পরিবর্তন করার সময় এসেছে। আপনার অ্যান্ড্রয়েড স্মার্টফোন টি যদি পুরাতন হয়ে থাকে তবে ২০২১ সালের ১১ই জানুয়ারি থেকে অনেক ওয়েব সাইটে প্রবেশ করা যাবে না। মানসম্মত অনেক ওয়েব সাইট এসব পুরাতন ফোনকে প্রবেশের জন্য অ্যাক্সেস দেবে না। মূলত নিরাপত্তাজনিত কারনে এমন সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে।



আমরা যখন আমাদের স্মার্টফোন দিয়ে কোন ওয়েব সাইটে প্রবেশ করি তখন সাইটটিতে কয়েকটি সার্টিফিকেশনের মধ্য দিয়ে প্রবেশ করতে হয়। সাইটি যদি স্মার্টফোনটিতে কোন সমস্য মনে না করে বা যদি সার্টিফাইট হয় তবেই সাইটটিতে ঢোকা সম্ভব। রুট সার্টিফিকেট অথোরিটি "লেটস এনক্রিপ্ট" পুরাতন ফোনের ওয়েব সাইটে অ্যাক্সেস না পাওয়ার কারণ হিসেবে উল্লেখ করেছে যে, পুরাতন এসব ফোনে রুট সার্টিফিকেট ইস্যুতে নিরাপদ নয়। অ্যান্ড্রয়েডের পুরাতন ভার্সন ব্যবহারকারীরা ওয়েব উপলব্ধ ৩০% Let’s Encrypt সিকিউরিটি সার্টিফিকেশন সমৃদ্ধ ওয়েবসাইটে প্রবেশ করতে পারবেন না।


তবে একেবারেই যে ওয়েব সাইটে ঢুকতে পারবে না এমনটি নয়। পুরাতন এসব অ্যান্ড্রয়েড ডিভাইসে অবস্য ওয়েব সাই অ্যাক্সেস এর জন্য বিকল্প একটি ব্যবস্থা অবস্য আছে। আর এসব সমস্যার সমাধান হলো ফায়ারফক্স ব্রাউজার। পুরনো এসব ফোনে ফায়ারফক্স ব্রাউজার ইনস্টল করলে ওয়েব সাইট গুলোতে ঢুকতে পারবেন ব্যবহারকারীরা। ফায়ারফক্সে সুবিধা পাওয়ার কারণ হলো ব্রাউজারটির নিজেস্ব সার্টিফিকেট সিস্টেম আছে ফলে একে ফোনের সার্টিফিকেশনের উপর নির্ভর করতে হয় না। তাছাড়া ব্যবহারকারীরা তার ফোনের পুরাতন ভার্সনকে নতুন ভার্সনে আপগ্রেড করেও সমস্যার সমাধান করতে পারেন।
বর্তমানে অ্যান্ড্রয়েড ৭.১ বা তার চাইতেও পুরাতন ভার্সনের স্মার্টফোন ব্যবহারকারীর সংখ্যা মোট স্মার্টফোন ব্যবহারকারীর ৩৩.৮ শতাংশ।
আমাদের অনুপ্রাণিত করতে
বন্ধুদের মাঝে নিউজটি শেয়ার করুন
ধন্যবাদ

Post a Comment

0 Comments